চাকা ভাঙা বিপদ

  |   North-Bengalnews

জরুরি বিভাগে ট্রলি রাখা নেই। একটি ভাঙা ট্রলি পড়ে আছে একধারে।

একটু এগিয়ে দেখা পাওয়া গেল হুইলচেয়ারের। সেগুলিরও কয়েকটি সামনের চাকা ভাঙা।

বুধবারই ভাঙা ট্রলি থেকে এক রোগী পড়ে যান ও মারা যান বলে পরিবারের লোকজন অভিযোগ তুলেছিল। বৃহস্পতিবার সেখানে গিয়ে দেখা গেল, চাকার অভাবে ভুগছে আরও অনেক কিছুই। ফলে বিপদের আশঙ্কা ঝুলে রয়েছে রোগীদের শিয়রে।

রোগীর আত্মীয়েরা বলছিলেন, বুধবার সন্ধ্যার ঘটনার অভিঘাতে একটা কাণ্ডই ঘটেছে। তা হল, ট্রলিগুলি উধাও হয়ে গিয়েছে। সরেন শীল, মিলন দাসদের মতো রোগীর আত্মীয়দের অভিযোগ, ট্রলি চাইলে হয় দাঁড় করিয়ে রাখা হচ্ছে, নয়তো কোনও জবাব মিলছে না।

এর ফল হচ্ছে মারাত্মক। রোগীর আত্মীয়েরাই জানাচ্ছেন, উপায়ন্তর না দেখে তাঁরা অনেক সময়ে টেনে নিচ্ছেন ভাঙা ট্রলিই। তাঁদের আরও অভিযোগ, ট্রলি যা-ও বা পাওয়া গেল, সেটা চালাবে কে? চাকা ভাঙা ট্রলির জন্য কিনা কে জানে, হাসপাতালের এমন কাউকে পাওয়া গেল না, যে রোগীকে এগিয়ে নিয়ে যাবে জরুরি বিভাগে বা সংশ্লিষ্ট ওয়ার্ডে। উপায়ন্তর না পেয়ে শেষে হাত লাগাতে হচ্ছে আত্মীয়দেরই। ''না হলে কতক্ষণ রোগীকে ফেলে রাখব?'' প্রশ্ন করলেন এক রোগীর আত্মীয়।...

ফটো - http://v.duta.us/fg-zHQAA

এখানে সম্পূর্ণ সংবাদ পড়ুন- - http://v.duta.us/iefuOgAA

📲 Get North-Bengalnews on Whatsapp 💬