বন্ধ পাঠাগার, আগ্রহ কমছে বইপ্রেমীদের

  |   Bardhamannews

সাতটি সরকারি গ্রন্থাগার রয়েছে মঙ্গলকোট ব্লকে। তার মধ্যে বন্ধ তিনটিই। আরও কয়েকটি নিয়ম মেনে খোলা হয় না, অভিযোগ স্থানীয় বাসিন্দাদের। বই না পেয়ে মুশকিলে পড়েছেন বইপ্রেমীরা। আবার পাঠাগারের বইয়ে ভরসা করতেন যে সব দুঃস্থ মেধাবীরা, মুশকিলে পড়েছেন তাঁরাও। এলাকার অবসরপ্রাপ্ত শিক্ষক-শিক্ষানুরাগীদের দাবি, একেই তরুণ প্রজন্মের টান কমছে বইয়ে। যাঁরা এখনও বইকেই সঙ্গী ভাবেন, এমন চললে বিকল্প খুঁজবেন তাঁরাও। তা ছাড়া, বই নষ্ট হওয়ার ভয় রয়েছেই।

জেলা গ্রন্থাগারিক সুমন্ত বন্দ্যোপাধ্যায় জানান, প্রায় দশ বছর ধরে গ্রন্থাগারিক পদে নিয়োগ বন্ধ। কর্মীর অভাবে বেশ কিছু গ্রন্থাগারের দায়িত্ব এক জনকে নিতে হচ্ছে। সব গ্রন্থাগার খোলা রাখাও সম্ভব হচ্ছে না। তিনি বলেন, ‘‘অনেক জায়গাতেই অবসরপ্রাপ্ত গ্রন্থাগারিক বা পরিচালন কমিটির কর্মকর্তাদের দায়িত্ব নিয়ে গ্রন্থাগার খোলার অনুরোধ করা হয়েছে। তাতে কাজও হচ্ছে। অনেক পাঠকও এ ব্যাপারে আগ্রহী হচ্ছেন। তাঁদের দফতরের তরফে স্বাগত জানানো হয়েছে।’’...

ফটো - http://v.duta.us/26aswwAA

এখানে সম্পূর্ণ সংবাদ পড়ুন— - http://v.duta.us/LWqyKwAA

📲 Get Bardhamannews on Whatsapp 💬